করোনা সংক্রমন রোধে স্বাস্থ্যবিধি মাস্ক ও সরকারী নির্দেশনা মেনে চলুন : আলম খান মুক্তি

প্রকাশিত:বুধবার, ০৭ এপ্রি ২০২১ ১০:০৪

করোনা সংক্রমন রোধে স্বাস্থ্যবিধি মাস্ক ও সরকারী নির্দেশনা মেনে চলুন : আলম খান মুক্তি

সুরমাভিউ দেশে ২য় পর্যায়ে করোনা সংক্রমন রোধে ও জনসেচনতা সৃষ্টিতে মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটেশন বিতরন করেছে সিলেট মহানগর যুবলীগ। বুধবার (৭ এপ্রিল) দুপুর ২টায় সিলেট নগরীর আম্বরখানা পয়েন্টে অসহায়, সাধারণ পথচারী ও ব্যবসায়ীদের মধ্যে এই মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটেশন বিতরণ করে সিলেট মহানগর যুবলীগ।

মাস্ক বিতরণকালে সিলেট মহানগর যুবলীগের সভাপতি আলম খান মুক্তি বলেন, করোনা ভাইরাসে মানুষ এখনও আতঙ্কের মধ্যে দিনযাপন করছেন, রাষ্ট্রনায়ক প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে এবং বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ ও সাধারণ সম্পাদক মো. মাইনুল হোসেন খান নিখিলের আহ্বানে করোনা আতঙ্ক যতদিন থাকবে, নগরীর বিভিন্ন এলাকায় মহানগর যুবলীগের কার্যক্রম অব্যাহত রাখবো ইনশাআল্লাহ। তিনি বলেন, সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষ ঘরে বসে থাকলে তাদের আয়-রোজগার হবে না বিধায় রাস্তায় বের হয়ে জীবিকার জন্য কাজ করছেন। সবাইকে স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলাচল করতে হবে। সব সময় মাস্ক পরিধান করলে অন্তত কিছুটা হলেও এই ভাইরাস থেকে রক্ষা পাওয়া যাবে। করোনা ভাইরাস শুরুর পর থেকেই সিলেট মহানগর যুবলীগ প্রতিনিয়ত অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে এবং জনগণের কল্যাণের জন্য সিলেট মহানগর যুবলীগ কাজ করে যাচ্ছে।

সিলেট মহানগর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মুশফিক জায়গীরদার বলেন, দিন দিন দেশে বেড়েই চলছে কভিড-১৯ করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব। তাই আমাদেরকে দায়িত্বশীল হতে হবে, আমার মনে হয় আমরা চাইলেই তা সম্ভব। আমরা চাই আমাদের পরিবার, আমাদের শহর, আমাদের প্রিয় বাংলাদেশ শান্ত ও সুস্থ হয়ে উঠুক, ফিরে আসুক চীরচেনা সেই সোনার বাংলার রুপে, তাই আসুন সবাই মিলে কিছুটাদিন সচেনতার পাশাপাশি দায়ীত্বশিল হই, একে অন্যকে সচেনতা করার পাশাপাশি দায়ীত্বশিল হওয়ার আহবান জানান তিনি। গতকাল নগরীতে শতাধিক পরিবারের মধ্যে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছে সিলেট মহানগর যুবলীগ।

হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও মাস্ক বিতরণকালে মহানগর যুবলীগের নেতৃবৃন্দের উপস্থিত ছিলেন ফাইয়াজ খান সলিট, দেলোয়ার হোসেন দিলাল, মোঃ আফজল হোসেন, সুলতান মাহমুদ সাজু, আক্তার হোসেন, ইমামুর রহমান লিটন, কামরান আহমদ শিপু, রুহুল আমিন. নাজমুল ইসলাম চৌধুরী, আজাদ উদ্দিন, রুপম আহমদ, বুলবুল চৌধুরী, সেবুল আহমদ সাগর, এমদাদ হোসেন ইমু, সাকারিয়া হোসেন সাকির, আমিনুল ইসলাম আমিন, আবির হাসান রানা, রেজাউল করিম হাসান, ফয়সল কাদির পাওয়েল, রাফিউল করিম মাসুম, সুমন ইসলাম খান, আব্দুল কাদির ইমন, আকিল আহমদ, রিমু খান, অমিত জিত, তানভির হোসেন তুহিন, নুরুল ইসলাম ছাড়াও যুবলীগের বিপুল সংখ্যক নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। বিজ্ঞপ্তি

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ