জগন্নাথপুরে মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা: শালিকে বাঁচাতে গিয়ে দুলাভাই আহত

প্রকাশিত:বুধবার, ৩১ মার্চ ২০২১ ০৩:০৩

জগন্নাথপুরে মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা: শালিকে বাঁচাতে গিয়ে দুলাভাই আহত

মোঃ আলী হোসেন খান: জগন্নাথপুর প্রতিনিধি।।

সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা ও শালিকে বাঁচাতে গিয়ে দুলাভাইকে আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

জানা যায় জগন্নাথপুর পৌরসভার ৯ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা মোঃ আলেক মিয়া (৪৬) তার ছোট মেয়ে ছালেমা বেগম (১৬) ছালেমা শবে বরাতের রাত ১০ ঘটিকায় সময় অজু করার জন্য টিউবওয়েলে গেলে, পূর্ব থেকে ওতপেতে থাকা একই এলাকার বাসিন্দা মোঃ তছকন উল্লার ছেলে মোঃ রবি মিয়া সহ আরো তিন চারজন লোক নিয়া কিশোরী ছালেমা বেগমের উপর ঝাপাইয়া পরিয়া জোর পূর্বক তুলে নেবার চেষ্টা করে।

ছালেমা বেগমের শোর ও চিৎকারে ঘরে থাকা তার দুলাভাই মোঃ ইব্রাহিম মিয়া ( ৩০) তাকে উদ্ধারের জন্য এগিয়ে আসলে অভিযুক্তরা ছালেমাকে রেখে ইব্রাহিমের উপর দেশীয় অস্ত্র নিয়া ঝাপাইয়া পরে এক পর্যায়ে তাকে মাটিতে ফেলিয়া বাশের লাঠি দিয়া শরীরের বিভিন্ন স্থানে পেটাতে থাকে।

ইব্রাহিম ও ছালেমার যৌথ চিৎকারে শুনিয়া স্থানীয় লোকজন এগিয়ে আসলে ঘটনাস্থল থেকে অভিযুক্তরা পালিয়ে যায়। পরে অজ্ঞান অবস্থায় ইব্রাহিমকে জগন্নাথপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

উল্লেখিত ঘটনায় মোঃ আলেক মিয়া বাদী হয়ে রবি মিয়া সহ আরো তিনজনকে আসামি করে জগন্নাথপুর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।এব্যাপারে জগন্নাথপুর থানার ওসি ইখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী জানান এ ঘটনা তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।