শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশের অভিযানে ৮টি চোরাই গরু উদ্ধার আটক-৪

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার, ১৮ মার্চ ২০২১ ০৮:০৩

শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশের অভিযানে ৮টি চোরাই গরু উদ্ধার আটক-৪

অরবিন্দ দেব, শ্রীমঙ্গল প্রতিনিধি:- মেীলভীবাজারের শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশের অভিযানে চোরাইকৃত ৮টি গরু ও চোরাই কাজে ব্যবহুত ১টি কারসহ ৪ জনকে আটক করেছে শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশ।

শ্রীমঙ্গল উপজেলার ৫নং কালাপুর ইউনিয়নের লামুয়া গ্রামের মৃত ছাত্তার মিয়ার পুত্র হারিছ মিয়া (৪৫) গত ১৬ মার্চ তার বাড়ির গোয়ালঘর থেকে ৪টি গরু চুরির বিষয়ে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করে।

শ্রীমঙ্গল থানার ওসি আব্দুস ছালেকের নির্দেশে ওসি (তদন্ত) মো. হুমায়ুন কবীরের নেতৃত্বে উক্ত মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মো. আলমগীর ও এএসআই সরোয়ার হোসেনসহ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গতকাল (১৭ মার্চ) উপজেলার ভুনবীর চৌমুহনা এলাকা থেকে গরু চুরিতে ব্যবহৃত প্রাইভেট কার তার নাম্বার (চট্ট-মেট্রো-ক-০২-২৫২৭) সহ উপজেলার কালাপুর ইউনিয়নের ভাগলপুর গ্রামের শেখ হায়দার আলীর পুত্র আনোয়ার হোসেন (৩০), লামুয়া গ্রামের মৃত মছদ্দর আলীর পুত্র সাদ্দাম মিয়া (২০) ও মাইজদিহি পাহাড়ের আজিদ মিয়ার পুত্র দেলোয়ার মিয়া (২২) কে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃত আসামীরা জিজ্ঞাসাবাদে তারা পুলিশকে জানায় মৌলভীবাজার জেলার রাজনগর উপজেলার ডেফলউড়া গ্রামের গরু চোর সর্দার দরুদ মিয়ার ভাই রউফ মিয়ার বাড়ির গোয়াল ঘরে বাদির চুরিকৃত গরুগুলো রয়েছে। রাতে রউফ মিয়ার বাড়ি এবং আরো একাধিক বাড়িতে অভিযান চালিয়ে পুলিশ মোট ৮টি গরু উদ্ধার করে।

অভিযানকালে দরুদ মিয়ার বাড়ি থেকে কুলাউড়া উপজেলার শিবির রোড জয়পাশা এলাকার মোশারফ হোসেনের পুত্র আশরাফ হোসেন রনি (২৮) কেও গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত আশরাফ হোসেন আন্তঃজেলা গাড়ি চোর চক্রের অন্যতম সদস্য বলে আজ দুপুরে শ্রীমঙ্গল থানায় এক প্রেস বিফিং-এ জানিয়েছেন থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. হুমায়ুন কবীর।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ