নৌকায় ভোট দিলেই এলাকার উন্নয়ন হয় : এড.নাসির উদ্দিন খান

প্রকাশিত:শনিবার, ১৩ ফেব্রু ২০২১ ১২:০২

নৌকায় ভোট দিলেই এলাকার উন্নয়ন হয় : এড.নাসির উদ্দিন খান
সুরমাভিউ:-  আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি সিলেটের কানাইঘাট পৌরসভার নির্বাচনকে সামনে রেখে নৌকা মার্কার প্রার্থী লুৎফুর রহমানকে বিজয়ী করতে নেতাকর্মীদের নিয়ে নির্বাচনী মাঠে ব্যাপক প্রচারনা চালাচ্ছেন সিলেট জেলা আওয়ামীলীগের নেতৃবৃন্দ। শুক্রবার ১২ ফেব্রুয়ারি  সিলেট জেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক এডভোকেট নাসির উদ্দিন খান খান নৌকা মার্কার সমর্থনে শেষ নির্বাচনী প্রচারণায় কানাইঘাট পৌরবাসীর  উদ্দেশ্যে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে এড. নাসির উদ্দিন খান বলেন, নৌকার জয় হলে, বাংলাদেশের অপ্রতিরোধ্য অগ্রযাত্রা অব্যাহত থাকবে এবং এগিয়ে যাবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা বাংলাদেশকে উন্নয়নশীল দেশ থেকে আরো সামনে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। সেটা বাস্তবায়ন করতে হলে কানাইঘাটে নৌকাকে জয়যুক্ত করতে হবে।

তিনি আরো বলেন উন্নয়নের স্বার্থে আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি কানাইঘাট পৌরসভা নির্বাচনে নৌকা মার্কায় ভোট দিন। তিনি বলেন, নৌকায় ভোট দিলেই এলাকার উন্নয়ন হয়। প্রতিটি গ্রামকে শহরে উন্নীত করতে কাজ করছে শেখ হাসিনা সরকার। এই ধারা অব্যাহত রাখতে ১৪ ফেব্রুয়ারী বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী লুৎফুর রহমানকে নৌকা মার্কায় ভোট দিন।

কানাইঘাট উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ সিরাজুল ইসলাম সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট নাসির উদ্দিন খান।

বিশেষ অতিথি উপস্থিত ছিলেন সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি শফিকুর রহমান চৌধুরী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কবির উদ্দিন আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট মাহফুজুর রহমান, এডভোকেট রনজিত সরকার, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক এডভোকেট মোহাম্মদ আব্বাছ উদ্দিন, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক মস্তাক আহমদ পলাশ, যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক এমাদ উদ্দিন মানিক, উপ- দপ্তর সম্পাদক মোঃ মজির উদ্দিন, সদস্য এডভোকেট ফখরুল ইসলাম, গোলাপ মিয়া, সিলেট জেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের অর্থ সম্পাদক এনামুল হক এনাম, সিলেট জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি শাহরিয়ার আলম সামাদ, সিলেট জেলা যুবলীগ নেতা মিজানুর রহমান, আহমদ হোসেন খান এবং স্থানীয় আওয়ামী লীগ যুবলীগ, ছাত্রলীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।