এসএসসি ব্যাচ ২০০২’র দ্বিতীয় দফায় শীতবস্ত্র বিতরণ

প্রকাশিত:সোমবার, ১৮ জানু ২০২১ ০৮:০১

এসএসসি ব্যাচ ২০০২’র দ্বিতীয় দফায় শীতবস্ত্র বিতরণ

জৈন্তাপুর প্রতিনিধি:- জৈন্তাপুর তৈয়ব আলী কারিগরি কলেজ মাঠে শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেছেন, ‘২০০২ সালে এসএসসি উত্তীর্ণদের সংগঠন এসএসসি ব্যাচ ২০০২ বাংলাদেশ এর উদ্যোগে অসহায়দের জন্য শীতবস্ত্র বিতরণের উদ্যোগ নিঃসন্দেহে প্রশংসনীয়। এমন উদ্যোগ আগামী দিনগুলোতেও অব্যাহত রাখা প্রয়োজন।

বক্তারা বলেন, ‘প্রবাসী বন্ধু ও সিলেটের বন্ধুদের আর্থিক সহায়তায় জৈন্তাপুরে প্রথম ও দ্বিতীয় দফায় যে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে তা অত্যন্ত উন্নতমানের। সংখ্যায় কম হলে এমন কম্বল যে কেউ দীর্ঘদিন ব্যবহার করতে পারবেন। আমরা মনেকরি সংখ্যা বড় জিনিস নয়, শীতবস্ত্রের মানের দিকে নজর দেয়া উচিত। এক্ষেত্রে এসএসসি ব্যাচ ২০০২ বাংলাদেশ ভালোমানের সামগ্রী উপহার দিয়েছে যা প্রশংসা পাওয়ার যোগ্য।

গত শনিবার বিকেল ৩টায় জৈন্তাপুর উপজেলার তৈয়ব আলী কারিগরি কলেজ প্রাঙ্গণে অর্ধশতাধিক মানুষের মধ্যে কম্বল বিতরণকালে অতিথিরা এসব কথা বলেন।

কম্বল বিতরণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জৈন্তাবার্তার সম্পাদক ও প্রকাশক ফারুক আহমদ, জৈন্তাপুর তৈয়ব আলী কারিগরি কলেজের অধ্যক্ষ রুহিনী রঞ্জন দে, সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের কোষাধ্যক্ষ ও দৈনিক একাত্তরের কথা’র প্রধান প্রতিবেদক মিসবাহ উদ্দীন আহমদ, চ্যানেল টোয়েন্টিফোরের সিলেট ব্যুরো প্রধান গোলজার আহমদ, এসএসসি ২০০২ ব্যাচ বাংলাদেশ’র নূর মোহাম্মদ খাঁন তাইফুর, ছাত্রনেতা বদরুল আজাদ রানা, যুবনেতা সবরুল ইসলাম নেপুর, সাইদুর রহমান বাবলু, মনোয়ার মুহিব, আহসান আহমদ চৌধুরী জুয়েল, ব্যবসায়ী মিনহাজুল ইসলাম, আনোয়ার আহমদ প্রমুখ। বিতরণ অনষ্ঠানে সহযোগীতায় ছিলেন মুস্তাক আহমদ, মঞ্জুরুল আলম, রফজল আহমদ প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, এর আগে একইদিন বেলা ১১টায় জৈন্তিয়া ইরাদেবী মিলনায়তন মাঠে জৈন্তাপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাহিদা পারভীনের উপস্থিতিতে আরও দেড়শ নারী-পুরুষের মধ্যে কম্বল বিতরণ করা হয়। এরকম কার্যক্রম আগামীতেও অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন ব্যাচের সাথে সংশ্লিষ্টরা।